ঢাকারবিবার , ১০ ডিসেম্বর ২০২৩
  1. ই পেপার
  2. ক্যাম্পাস
  3. খেলা
  4. চাকরি
  5. জাতীয়
  6. জীবনযাপন
  7. ধর্ম
  8. পাঠক কলাম
  9. পাবনা জেলা
  10. বাণিজ্য
  11. বাংলাদেশ
  12. বিজ্ঞান-প্রযুক্তি
  13. বিনোদন
  14. বিশেষ সংবাদ
  15. বিশ্ব

প্রথম দিনে প্রার্থিতা ফিরে পেলেন ৫৬ জন, নামঞ্জুর ৩২

বার্তা কক্ষ
ডিসেম্বর ১০, ২০২৩ ১২:২৭ অপরাহ্ণ
Link Copied!

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন

দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনে মনোনয়ন বাতিল হওয়া ৫৬ জন প্রার্থী প্রথম দিনে প্রার্থিতা ফিরে পেয়েছেন। এছাড়া ৩২ জন প্রার্থীর আপিল নামঞ্জুর আর ছয়জনের বিষয়ে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি বলে ইসি সূত্রে জানা গেছে।

১০ ডিসেম্বর, রবিবার থেকে শুরু হয়েছে প্রার্থিতা ফিরে পাওয়ার আপিল শুনানি। আগামী ১৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত ৫৬১টি আপিলের পর্যায়ক্রমে শুনানির মাধ্যমে নিষ্পত্তি করবে নির্বাচন কমিশন।

প্রার্থিতা ফিরে পাওয়াদের মধ্যে সাবেক সংসদ সদস্য, আওয়ামী লীগ নেতাদের মধ্যে একাধিক স্বতন্ত্র, জাতীয় পার্টি প্রার্থী ও অন্যান্য দলের প্রার্থীরা রয়েছেন।

এবারের সংসদ নির্বাচনে ২৯টি দল ও স্বতন্ত্র মিলিয়ে দুই হাজার ৭১২ প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। রিটার্নিং কর্মকর্তার বাছাইয়ে বাদ পড়ে ৭৩১ জন প্রার্থীর মনোনয়ন।

প্রথম দিনের আপিল শুনানিতে ৯৪ জনের মধ্যে ৫৬ জন প্রার্থী মনোনয়ন ফিরে পেয়েছেন।

মনোনয়ন ফিরে পাওয়াদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য প্রার্থীরা হলেন- নেত্রকোনা-৫ আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী অধ্যাপক আনোয়ার হোসেন, মুন্সিগঞ্জ-১ মাহি বি চৌধুরী, কিশোরগঞ্জ-৩ নৌকা প্রতীকের নাসিরুল ইসলাম খান, পাবনা-২ ডলি সায়ন্তনী, বগুড়া-৪ হিরো আলম, চাঁপাইনবাবগঞ্জ-১ আসনের প্রার্থী নজরুল ইসলাম, মাদারীপুর-২ আসনে ইউসুফ আলী সুমন, চট্টগ্রাম-১৫ আব্দুল মোতালেব, যশোর-৩ মহিদুল ইসলাম, যশোর-৫ হাবিবুর রহমান, ঢাকা-৫ কামরুল হাসান, চট্টগ্রাম-১ মোহাম্মদ গিয়াস উদ্দিন, যশোর-৫ শেখ নুরুজ্জামান, মুন্সিগঞ্জ-২ বাছু শেখ, যশোর-৩ মোহিত কুমার নাথ, খুলনা-৪ এস, এম, মোর্ত্তজা রশিদী দারা, যশোর-৬ হোসাইন মোহাম্মদ ইসলাম, ঢাকা-১২ খোরশেদ আলম খুশু, টাঙ্গাইল-৬ কাজী এটিএম আনিছুর রহমান বুলবুল, রংপুর-২ জিল্লুর রহমান, কুষ্টিয়া-১ মুহা. ফিরোজ আল মামুন, ফরিদপুর-১ আরিফুর রহমান দোলন প্রমুখ।

প্রসঙ্গত, রিটার্নিং কর্মকর্তার প্রার্থিতা বাছাইয়ের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আপিল দায়েরের সময়সীমা শেষ হয়েছে গতকাল শনিবার (৯ ডিসেম্বর)। গত ৫ ডিসেম্বর আপিল আবেদন শুরু হওয়ার পর থেকে পাঁচ দিনে মোট ৫৬১টি জমা পড়ে। প্রথম দিন ৪২, দ্বিতীয় দিন ১৪১, তৃতীয় দিন ১৫৫, চতুর্থ দিন ৯৩ জন এবং পঞ্চম দিন ১৩০ জন আপিল আবেদন করেন। এসব আপিল আবেদনের মধ্যে ৩২টি আবেদন পড়েছে বৈধ প্রার্থীর প্রার্থিতা বাতিল চেয়ে।

১৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত নির্বাচন ভবনের অডিটোরিয়াম (বেজমেন্ট-২) এ আপিল আবেদনের শুনানি প্রতিদিন সকাল ১০টায় শুরু হয়ে চলবে বিকেল ৪টা পর্যন্ত। সোমবার (১১ ডিসেম্বর) ৯৫-২০০ নম্বর আপিল, ১২ ডিসেম্বর ২০১-৩০০ নম্বর আপিল, ১৩ ডিসেম্বর ৩০১-৪০০ নম্বর আপিল, ১৪ ডিসেম্বর ৪০১-৫০০ নম্বর আপিল এবং ১৫ ডিসেম্বর ৫০১ থেকে অবশিষ্ট আপিলের শুনানি অনুষ্ঠিত হবে।

তফশিল অনুযায়ী, প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ সময় ১৭ ডিসেম্বর। রিটার্নিং কর্মকর্তারা প্রতীক বরাদ্দ করবেন ১৮ ডিসেম্বর। নির্বাচনী প্রচার চলবে ৫ জানুয়ারি সকাল ৮টা পর্যন্ত। আর ভোটগ্রহণ হবে ৭ জানুয়ারি।

দৈনিক এরোমনি প্রতিদিন ডটকম তথ্য মন্ত্রণালয়ের নিবন্ধন প্রক্রিয়াধীন অনলাইন নিউজ পোর্টাল